Saturday , May 15 2021

ক’রোনাকালে ফু’সফুসের কা’র্যকারিতা বাড়াতে যা করবেন

ক’রোনাভা’ইরাস ফু’সফুসেই থা’বা বসায়। আর এই ফু’সফুসের মাধ্যমেই মানুষ বেঁ’চে থাকার জন্য শ্বা’স-প্রশ্বা’স নেয়। এ সময় ফু’সফুসের কা’র্যকারিতা বাড়াতে এর যত্ন নেওয়া জ’রুরি। প্রতিদিন কিছু শ্বা’স-প্রশ্বা’সের অনুশীলন করার মাধ্যমে তা সম্ভব।

কয়েকটি ব্যায়ামের মাধ্যমেই ক’রোনাকালে আপনি ফু’সফুসকে সু’স্থ রাখতে পারবেন। এতে ক’রোনায় সং’ক্রমিত হওয়ার ঝুঁ’কি কমবে।

শ্বা’স-প্রশ্বা’সের অনুশীলনগুলো আপনার মনকে শান্ত ক’রতে, মা’নসিক ভারসাম্য বজায় রাখতে, মেজাজকে স্থিতিশীল ক’রতে এবং দম ধ’রে রাখার মাত্রা বাড়াতেও সহায়তা করবে।

জে’নে নিন এই ক’রোনাকালে ফু’সফুস সু’স্থ রাখতে যে কয়েকটি ব্যায়াম আপনার প্রতিদিনের রুটিনে যোগ করবেন-

উজ্জয়ই প্রা’ণায়াম: শ্বা’স-প্রশ্বা’সের এই অনুশীলনটি দম ধ’রে রাখার মাত্রা বাড়াতে পারে। আপনি যতক্ষণ নিঃশ্বা’স বা দম ধ’রে রাখতে পারবেন, তার মানে হলো আপনার ফু’সফুস ততটাই সুস্হ আছে।

এ ছাড়াও শ’রীরের উত্তেজনা মু’ক্ত ক’রতে পারে, শ’রীরের অভ্যন্তরীণ তাপমাত্রা নি’য়ন্ত্রণ ক’রতে পারে এবং ফু’সফুসের ক্রিয়াকে উত্সাহিত করে এটি। অনুশীলটি কীভাবে করবেন?

প্রথমে আপনার চোখ ব’ন্ধ করে ধ্যানের ভঙ্গিতে মাটিতে বসে পড়ুন। এরপর আপনার মুখ দিয়ে দীর্ঘ শ্বা’স নিন। এ সময় ক্রমাগত মুখ দিয়ে শ্বা’স নিতে হবে আর বের করে দিতে হবে।

এভাবে কিছুক্ষণ করার পর আপনার মুখ ব’ন্ধ করুন এবং নাক দিয়ে নিঃশ্বা’স নিতে শুরু করুন। কিছুক্ষণ দম ধ’রে রেখে তারপর শ্বা’স ছাড়ুন। এভাবে কয়েক মিনিট করুন।

কপালভটি প্রা’ণায়াম: এই অনুশীলটি ফু’সফুসের পেশি শ’ক্তিশালী করে এবং সু’স্থ রাখে। এ ছাড়াও দম ধ’রে রাখার মাত্রাও বাড়বে নিয়মিত এ অনুশীলনটি করলে।

হাঁটুতে হাত রেখে ধ্যানমগ্ন ভঙ্গিতে বসে পড়ুন। এ সময় আপনার মেরুদণ্ড সোজা রাখবেন। নাক দিয়ে এমনভাবে গ’ভীর শ্বা’স নিন; যেন মেরুদণ্ড পে’ট টেনে নিচ্ছে দিকে।

এরপর নাক দিয়ে দ্রুত শ্বা’স ছাড়ুন। এই অনুশীলনটি প্রতিদিন ১০ বার করুন। ধীরে ধীরে শ্বা’স নিন এবং দ্রুত শ্বা’স ছাড়ুন।

নাদি শোধান: সূক্ষ্ম শ্বা’স প্রশ্বা’সের কৌশল এটি। উদ্বেগ কমাতে এবং মা’নসিক সু’স্থতার পাশাপাশি ফু’সফুসকে শ’ক্তিশালী করে এ অনুশীনটি। এবার ধ্যানমগ্ন অব’স্থায় মাটিতে আরামে বসুন।

এরপর স্বভাবিকভাবেই কয়েকবার ধীরে ধীরে শ্বা’স নিন এবং ছাড়ুন। আপনার বাম হাতটি আপনার উরুতে রেখে দিন। এবার আপনার ডান হাতের মুঠো ভাঁজ করে তর্জনী আঙুল দিয়ে ডান পাশের নাকটি ব’ন্ধ করুন।

এবার বাম নাক দিয়েই দীর্ঘ নিঃশ্বা’স নিন এবং বাম নাকটি ধ’রে ডান নাক দিয়ে শ্বা’স ছাড়ুন। তারপরে আপনার ডান নাক দিয়ে শ্বা’স নিয়ে তা ব’ন্ধ করে বাম নাক শ্বা’স ছাড়ুন। এভাবেই প্রতিদিন কয়েক মিনিট করে নাদি শোধান অনুশীলটি করুন।