Friday , May 27 2022

দাফনের ২৭ বছর পরও কবরে অক্ষত মরদেহ!

যে জন্মেছে সে মরবেই। যার সূচনা হয়েছে তার সমাপ্তি ঘটবেই। এটা খোদা পাকের শাশ্বত চিরন্তন বিধান। পৃথিবীর বুকে সবচেয়ে চির ও অনড় সত্য হলো মৃত্যু।

কুষ্টিয়ার মিরপুরে দাফনের ২৭ বছর পর মঞ্জুর মল্লিক নামে এক ব্যক্তির অক্ষত মরদেহ শনাক্ত হয়েছে।

শুক্রবার (৭ জানুয়ারি) সকালে মিরপুর উপজেলার কুর্শা ইউনিয়নের মাজিহাট খাঁ পাড়া গ্রামে চাঞ্চল্যকর এ ঘটনা ঘটে।

স্বজনরা জানান, প্রায় ২৭ বছর আগে মঞ্জুর মল্লিক ৭০ বছর বয়সে মারা গেলে তাকে বাড়ির পাশে পারিবারিক কবরস্থানে দাফন করা হয়। শুক্রবার দুপুর ১২টার দিকে মৃত ওই ব্যক্তির ছেলে আবুল হোসেন কবরস্থানের পাশে ঘর নির্মাণের জন্য শ্রমিক দিয়ে মাটি খোঁড়াখুঁড়ি শুরু করলে এক সময় তার বাবার দাফন করা অক্ষত মরদেহ বের হয়ে আসে।

মৃত মনজুর মল্লিকের ছেলে ছালামত জানান, প্রায় ২৭ বছর আগে তার বাবার স্বাভাবিক মৃত্যু হলে ওই জায়গায় দাফন করা হয়। কবরের পাশে বাড়ি নির্মাণের জন্য মাটি খুঁড়তে গেলে মরদেহটি বের হয়ে আসে। দেখা যায়, মরদেহের কোনো পরিবর্তন হয়নি, অক্ষত অবস্থায় রয়ে গেছে। এমনকি কাফনের কাপড়েরও কোনো পরিবর্তন ঘটেনি। বিষয়টি জানার পর দূর-দূরান্ত থেকে উৎসুক জনতা ওই এলাকায় ভিড় করছে।

মিরপুর থানার ভারপ্রাপ্ত কর্মকর্তা (ওসি) গোলাম মোস্তফা ঘটনার সত্যতা নিশ্চিত করেন।