Saturday , January 22 2022

ইসলামের পথে নায়িকা মাহি, চলচ্চিত্রে না ফেরার সম্ভাবনা!

পূর্ব ঘোষণা অনুযায়ী ওমরার উদ্দেশ্যে সৌদি আরব গেছেন ঢাকাই সিনেমার জনপ্রিয় চিত্রনায়িকা মাহিয়া মাহি। গেলো বুধবার (২৪ নভেম্বর) ওমরা হজ পালনের জন্য স্বামী রাকিবকে নিয়ে ঢাকা ছাড়েন এই নায়িকা।

যাওয়ার আগে এয়ারপোর্টে তোলা কিছু ছবি ফেসবুকে পোস্ট করে মাহি লিখেছেন- ‘আলহামদুলিল্লাহ, জীবনে প্রথমবার ওমরাহ করতে যাচ্ছি। এই অনুভূতি প্রকাশের ঊর্ধ্বে। রাকিব সরকার তোমার জন্য অন্তর থেকে অনেক অনেক দোয়া। সবাই আমাদের জন্য দোয়া করবেন।’ আপাতত এটিই তার লাস্ট পোস্ট।

চলমান গুঞ্জন, ওমরার পর সিনেমায় অভিনয় করা ছেড়ে দেবেন মাহি। এদিকে মাহির হাতে তিনটি সিনেমা রয়েছে। পরিচালকরা আশাবাদী, ওমরা শেষে দেশে ফিরে শুটিংয়ে যোগ দেবেন মাহি।

এদিকে মাহির ঘনিষ্ঠজনরা জানিয়েছেন, ওমরাহ করার পর চলচ্চিত্র ছেড়ে দেবেন এই অভিনেত্রী। কাছের জনদের এমনই ইঙ্গিত দিয়েছেন মাহি। কিন্তু শোনা যাচ্ছে, মাহির হাতে যেসব সিনেমা আছে সেগুলোর কাজ শেষ করেই চলচ্চিত্রকে বিদায় জানাবেন তিনি। মাহির চলচ্চিত্র ছাড়ার গুঞ্জনে ভক্তরা কষ্ট পেলেও তার ওমরাহ করার বিষয়কে ইতিবাচকভাবে দেখছেন অনেক দর্শক। তারা মাহির প্রশংসা করেছেন।

বর্তমানে মাহির হাতে রয়েছে- ‘নরসুন্দরী’, ‘মাফিয়া’, ‘অহংকারী বউ’, ‘গ্যাংস্টার’সহ বেশ কিছু সিনেমা।

সম্প্রতি নতুন করে ঘর বেঁধেছেন মাহিয়া মাহি। তার স্বামীর নাম রাকিব সরকার। তিনি ব্যবসায়ী ও গাজীপুরে এক রাজনৈতিক পরিবারের সন্তান। তিনি নিজেও রাজনীতির সঙ্গে জড়িত। এটি মাহির তৃতীয় বিয়ে হলেও রাকিবের দ্বিতীয় বিয়ে। রাকিবের আগের ঘরে এক ছেলে ও এক মেয়ে রয়েছে।

এর আগে সিলেটের ব্যবসায়ী পারভেজ মাহমুদ অপুকে ২০১৬ সালে ভালোবেসে বিয়ে করেন মাহিয়া মাহি। বিয়ের এক বছর না যেতেই তাদের মধ্যে বিচ্ছেদের কথা শোনা যাচ্ছিল। অবশেষে সব জল্পনা-কল্পনার অবসান ঘটিয়ে গেল মে মাসে অপুর সঙ্গে বিচ্ছেদের ঘোষণা দেন মাহি। তারপরই রাকিবের সঙ্গে ঘর বাঁধেন এই অভিনেত্রী।